সাম্প্রতিক Archives - Women Words

সাম্প্রতিক

সৌদি আরবে সব নারী ক্রু নিয়ে প্রথম ফ্লাইট

সৌদি আরবে সব নারী ক্রু নিয়ে প্রথম ফ্লাইট

প্রথমবারের মতো সৌদি আরবে সব নারী ক্রু নিয়ে একটি ফ্লাইট পরিচালনা করা হয়েছে। রক্ষণশীল দেশটিতে এ ঘটনাকে নারীর ক্ষমতায়নের মাইলফলক হিসেবে দেখা হচ্ছে। সৌদি আরবে স্বল্পমূল্যের এয়ারলাইন ফ্লাইডেল শনিবার ওই ফ্লাইট পরিচালনা করে। খবর আরব নিউজের। ফ্লাইটটি রাজধানী রিয়াদ থেকে জেদ্দার উদ্দেশে রওনা হয়। ফ্লাইডেলের মুখপাত্র ইমাদ ইসকানদারানি বলেন, ওই উড়োজাহাজের সাত ক্রুর মধ্যে বেশিরভাগই সৌদি নারী। ক্রুদের মধ্যে ফার্স্ট অফিসার সৌদি নারী। তবে ফ্লাইটটির ক্যাপ্টেনের দায়িত্বে ছিলেন বিদেশি এক নারী। সৌদি আরবের সিভিল অ্যাভিয়েশন কর্তৃপক্ষ সাম্প্রতিক বছরগুলোতে উড়োজাহাজ পরিচালনায় নারীদের ভূমিকা আরও জোরালো করার কথা বলেছে। ২০১৯ সালে ফ্লাইডেল কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দেয়, এটিই প্রথম ফ্লাইট যেখানে এক সৌদি নারী কো-পাইলট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। সৌদি কর্মকর্তারা অ্যাভিয়েশন খাতের উন্নয়নের চেষ্টা চালাচ্ছেন। যাতে দেশটি বৈ
তালেবানের নির্দেশ মেনে মুখ ঢেকে টিভি পর্দায় এলেন আফগান উপস্থাপিকারা

তালেবানের নির্দেশ মেনে মুখ ঢেকে টিভি পর্দায় এলেন আফগান উপস্থাপিকারা

তালেবানের নির্দেশনা মেনে টেলিভিশনের পর্দায় মুখ ঢেকে হাজির হয়েছেন আফগানিস্তানের উপস্থাপিকারা। বিবিসি রোববার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। আফগানিস্তানে নারী উপস্থাপকদের টেলিভিশনের পর্দায় শনিবার থেকে মুখ ঢেকে হাজির হওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল তালেবান। যদিও শনিবার তাদেরকে মুখ না ঢেকেই টেলিভিশনের পর্দায় হাজির হতে দেখা যায়। কিন্তু রোববার তালেবারের নির্দেশনা মেনে আফগানিস্তানের উপস্থাপিকরা মুখ ঢেকেই হাজির হয়েছেন টেলিভিশনের পর্দায়। বিবিসি জানায়, একজন উপস্থাপিকা বলেছেন টিভিতে কর্মরত নারীরা প্রতিবাদ করলেও তাদের নিয়োগকর্তারা চাপের মুখে পড়ায় তালেবানের নির্দেশ কার্যকর করা হয়েছে। হিজাব এবং মুখ ঢাকা বোরকা পরা নারীরা টোলোনিউজ, আরিয়ানা টেলিভিশন, শামশাদ টিভি এবং ওয়ান টিভির মতো জনপ্রিয় চ্যানেল জুড়ে নিউজ বুলেটিন এবং অন্যান্য প্রোগ্রামে উপস্থাপনা ও রিপোর্ট করেছেন বলে বিবিসি জানিয়েছে। টোলোনিউজের উ
’স্টপ রেপিং আস’

’স্টপ রেপিং আস’

৭৫তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের লালগালিচায় ভিন্নরকম প্রতিবাদ জানিয়েছেন এক ইউক্রেনীয় নারী। উৎসবের লালগালিচায় হাঁটার সময় ওই নারী পরনের কালো গাউনটি খুলে ফেলে ‘নো নো স্টপ’ বলে চিৎকার করতে থাকেন। তখন দেখা যায় তার বুকে আঁকা ইউক্রেনের কালো হলুদ পতাকার উপর কালো হরফে লেখা ‘STOP RAPING US’ (আমাদের ধর্ষণ করা বন্ধ কর)। আর পরনের অন্তর্বাসজুড়ে রক্তাক্ত হাতের ছাপ। কয়েক মুহূর্তের মধ্যেই অবশ্য নিরাপত্তারক্ষীরা তাকে একটি জ্যাকেট পরিয়ে সরিয়ে নিয়ে যায়। যাওয়ার সময়ও তিনি ‘স্টপ রেপিং আস’ বলে চিৎকার করছিলেন। ততক্ষণে অবশ্য তাঁর উদ্দেশ্য সম্পর্কে ওয়াকিবহাল হয়ে গেছেন উপস্থিত সেলিব্রিটিরা। রাশিয়ান সেনাদের দ্বারা ইউক্রেনীয় নারী ও শিশুদের ধর্ষণের বিরুদ্ধে নগ্ন হয়ে প্রতিবাদ জানালেন এই তরুণী। ওই সময় জর্জ মিলারের ‘থ্রি থাউজ্যান্ড ইয়ার্স অফ লঙ্গিং’ ছবির প্রিমিয়ারে যোগ দিতে ঢুকছিলেন টিল্ডা সুইন্টন এবং ইদ্রিশ অ্যালবা। ওই
যে নারীরা কোন দিন বিয়ে করেন নি, কেমন তাদের জীবন

যে নারীরা কোন দিন বিয়ে করেন নি, কেমন তাদের জীবন

শাহনাজ পারভীন ঢাকার ধানমন্ডিতে এমন এক বাড়িতে গিয়েছিলাম যে ধাঁচের পুরনো ভবন ইদানীং এই শহরে খুঁজে পাওয়া মুশকিল। দরজার বেল বাজাতেই ধীর গতিতে বের হয়ে এলেন সত্তরের কাছাকাছি বয়সী ফাতেমা যোহরা। মনে হল সাথে করে যেন নিয়ে এলেন এক ধরনের নির্ঝঞ্ঝাট আবহ। পরিপাটি বসার ঘরে আসবাবের অনেকগুলোর বয়স তারই সমান। কথা শুরু হতেই হাসিমুখে জানালেন চিরকুমারী জীবন কেমন চলছে তার। "আমি খুবই, খুবই সুখী এখন পর্যন্ত। মাঠে যাই, এনজয় করি। বড় পুকুরের পাশে বসে থাকি। পুকুরে মাছের পোনা ছাড়ি। যখন যেখানে যেতে চাই চলে যাই। বিয়ে না করার সবচেয়ে বড় এক্সাইটিং পার্ট হল আমার কোনা বাইন্ডিংস নাই। আমার কোন চিন্তা নাই। আমার একটা লিবার্টি আছে যে আমাকে কেউ বলছে না তুমি এটা করছ না কেন? এটা করছ কেন? বা এটা করবে না", বলছিলেন যোহরা। বাংলাদেশসহ বিশ্বের প্রায় সকল সমাজে একজন নারী নির্দিষ্ট একটি বয়সে বিয়ে করবেন, সংসারী হবেন
তালিবানদের বিষয়ে কী জানালেন আফগান পর্ন তারকা ইয়াসমিন?

তালিবানদের বিষয়ে কী জানালেন আফগান পর্ন তারকা ইয়াসমিন?

আফগানিস্তানের নয়া শাসক তালিবানরা বিশ্বাস করে যে মেয়েদের আপাদমস্তক ঢেকে রাখা উচিত। তবে সেই আফগানিস্তানেরই একজন নারী প্রাপ্তবয়স্কদের ছবিতে অভিনয় করেন। পেশাদার ওই পর্ন তারকা বর্তমানে আফগানিস্তানে থাকেন না। তবে তালিবান শাসনের প্রথম দফায় তিনি কাবুলেই ছিলেন। তালিবানি হিংসা সামনে থেকে দেখেছেন। তাঁর নাম ইয়াসমিন আলি। ইয়াসমিনের দাবি, তিনিই আফগানিস্তানের প্রথম এবং একমাত্র পর্ন ছবির তারকা। তাঁর আগে বা পরে কেউ আফগানিস্তান থেকে প্রাপ্তবয়স্কদের ছবিতে অভিনয়ের সাহস দেখাননি। পর্ন ছবির দুনিয়ায় ইয়াসমিনের জনপ্রিয়তা আছে। ‘ওনলি ফ্যানস’ এবং ‘পর্ন হাবে’ তাঁর অভিনীত প্রাপ্তবয়স্কদের ছবি প্রায় সবসময়ই দেখা যায়। তারপরও তালিবানরা যে তাঁর বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ নিতে পারেনি, তার কারণ তাঁর সাম্প্রতিক ঠিকানা। ইয়াসমিন এখন ব্রিটেনে থাকেন। শুধু তা-ই নয়, নিজের ধর্মও ছেড়েছেন তিনি। নিজেকে এখন ‘ঈশ্বর অবিশ্বাসী’ বলে
মেয়েকে স্তন্যপান করানোর ছবি প্রকাশ করলেন ইভলিন

মেয়েকে স্তন্যপান করানোর ছবি প্রকাশ করলেন ইভলিন

মেয়ে আভার সঙ্গে ইনস্টাগ্রামে ছবি দিয়ে চমকে দিলেন 'ইয়ে জওয়ানি হ্যায় দিওয়ানি'র অভিনেত্রী ইভলিন শর্মা। মেয়েকে স্তন্যপান করানোর ছবি দিয়ে অনুরাগীদের বোঝাতে চাইলেন, এ নিয়ে কোনও ছুঁতমার্গ তো তাঁর নেই-ই, বরং মা হিসেবে মেয়ে আভাকে স্তন্যপান করিয়ে তিনি নিজেকে পূর্ণ মনে করছেন। সাংবাদিকদেরকে ইভলিন বলেছেন, "আমি মা হিসেবে এ বার পরিপূর্ণ ভাবে নিজেকে মেলে ধরতে পারছি। নিজের সন্তানকে খাওয়ানো, তার হাসিমুখ দেখার মধ্যে যে আনন্দ, তা জেগে কাটানো সব রাতের ক্লান্তি ভুলিয়ে দেয়।" মা হওয়ার ইচ্ছে যে তাঁর বহু দিনের। অনলাইনে প্রায়শই অনুরাগীদের সঙ্গে মা হওয়া বিষয়ক ভিডিও, ছবি দিয়ে নিজের ভাবনা প্রকাশ করতেন অভিনেত্রী। ফুটফুটে এক কন্যা সন্তানের মা হয়েছেন ২০২১-এর ১২ নভেম্বর। ইনস্টাগ্রামে মেয়ের সঙ্গে ছবি পোস্ট করে ইভলিন লিখেছেন, 'আমার জীবনের সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় শুরু হল'। সেই পোস্টেই সদ্যোজাত ক
’তর্কের কারণে স্বামীর মারধরের শিকার হন বেশিরভাগ নারী’

’তর্কের কারণে স্বামীর মারধরের শিকার হন বেশিরভাগ নারী’

মাহবুব সরদার স্বামীর সঙ্গে তর্ক করার কারণে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক নারী স্বামীর মারধরের শিকার হন বলে গবেষণায় উঠে এসেছে। দেশব্যাপী নারীর প্রতি সহিংসতার ওপর করা এ গবেষণায় স্ত্রীকে মারধরের আরও কয়েকটি বিশেষ কারণ উঠে আসে। যেখানে নারীদের একটি অংশ মনে করেন রান্নার সময় খাবার পুড়িয়ে ফেললে স্বামীর মারধর করার অধিকার আছে। ইউনিসেফের অর্থায়নে দেশব্যাপী মাল্টিপল ইনডিকেটর ক্লাস্টার সার্ভে-২০১৯ ডাটাবেজের তথ্যের ভিত্তিতে করা গবেষণা নিবন্ধটি গত ৪ জানুয়ারি যুক্তরাজ্যের ‘বায়োমেড সেন্ট্রাল সাইক্যাট্রি’ জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে। এতে উল্লেখ করা হয়, ঘনিষ্ঠ সঙ্গীর কাছ থেকে পাওয়া সহিংসতার হার পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে ২০ শতাংশ, ইউরোপসহ ধনী দেশগুলোতে ২২ শতাংশ, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অধীনে আমেরিকা অঞ্চলে ২৫ শতাংশ, আফ্রিকা অঞ্চলে ৩৩ শতাংশ, পূর্ব ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চলে ৩১ শতাংশ এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় ৩৩ শত
দুর্গা পূজায় ৪ নারী পুরোহিত, মায়ের হাতে মায়ের পুজো

দুর্গা পূজায় ৪ নারী পুরোহিত, মায়ের হাতে মায়ের পুজো

কলকাতার বিখ্যাত ৬৬ পল্লীর দুর্গা পূজা নজির তৈরি করতে চলেছে। এবার দুর্গা পূজায় ৬৬ পল্লী দুর্গোৎসবে পৌরোহিত্য করবেন নারী পুরোহিত নন্দিনী ভৌমিক, রুমা রায়, সেমন্তী ব্যানার্জি ও পৌলোমী চক্রবর্তী। কলকাতার তথা এই বঙ্গের কয়েক শতকের পুরনো রেওয়াজ ভাঙতে চলেছেন এই চার নারী। আপাতত এই নতুন ট্রেন্ড নিয়েই মশগুল নেটদুনিয়াও। সকলেই চাইছেন শারদ উৎসবে ও অন্যান্য ধর্মীয় অনুষ্ঠানে নারীদের পৌরহিত্যের এই রেওয়াজ ব্যাপকভাবে জনপ্রিয় হোক, আর পাঁচটা ক্ষেত্রের মত ধর্মীয় অনুষ্ঠানের পুরাতন সংস্কারকে ঝেড়ে ফেলে নতুনকে স্বাগত জানিয়ে ভারতকে পথ দেখাক বাংলা। নিত্যনতুন ছকভাঙা কনসেপ্ট সামনে এনে প্রতি বারই চমকে দেয় ৬৬ পল্লী। এক অর্থে বললে এবার তাদের চমক এটাই বারোয়ারি পূজায় নারীদের পৌরোহিত্য।‌ ক্লাবের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে,সনাতনী নিয়ম মেনে পুজোর সমস্ত আচার-অনুষ্ঠান হবে, আর এটাই এবারের থিম। নারী পুরোহিতদের এই দলের প্রধা
আমার শহরের রাস্তায়, আমি কতটা নিরাপদ?

আমার শহরের রাস্তায়, আমি কতটা নিরাপদ?

জুডি রোজারিও দিনটি ৭ই জুন। অফিস শেষে গেলাম সিদ্ধেশ্বরী। আমার ওরাল সার্জারির সেলাই খুলতে। মা বারবার সঙ্গে যেতে চাইলেও, নিজেই একা একা চলে যাই।নিজেকে অনেক সাহসী মনে হচ্ছিল ওয়েটিং রুমে বসে থাকতে থাকতে। মিস্টার বিনের ডেন্টিস্ট এপিসোডের ভিডিও ক্লিপ দেখতে থাকি বসে বসে। আমার কল আসা সত্ত্বেও রিসিপশনের আপুকে বলি, 'আমি ডক্টর রবি কে দেখাবো , উনি ফ্রি হলেই যাবো ' (কারণ উনি আমাকে বলেছিলো যে আমার মাড়ি অবশ করে নিবে, টের পাব না। ) শেষ করে মা কে জানালাম কাজ শেষ, বাসায় ফিরবো, ফোনে চার্জ নাই, অফ হয়ে গেলে টেনশন যেন না করে। কিছুক্ষন বসলাম, অ্যানাসথেসিয়া স্প্রেতে,ভারী হওয়া গাল টা নিয়ে। নিচে নেমে সিএনজি অটোরিক্সা না পেয়ে বেইলি রোডের দিকে হাঁটা শুরু করলাম। কেউ যেতে চায়না, যখন মেইন রোডের প্রায় কাছাকাছি, একটু চিন্তায় পড়লাম যে হায় হায় বাসায় যাবো কিভাবে ! ঠিক তখনি মেইন রোডের দিকে থেকে একটা ছেলে (কদম ছাঁট চুল, শ
করোনাকালের কাহিনী

করোনাকালের কাহিনী

সৈয়দা আফরোজা আমার মেয়েটি আজ প্রায় দুই মাস হতে চলল ঘরবন্দি হয়ে আছে সুদূর যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক শহরে, সেখানে গ্র্যাজুয়েশন শেষ করে সে এখন মাস্টার্স করছে। অনেক দিন পর এবার ওর কাছে গিয়ে দেড় মাসের মতো থেকে এলাম। আসার আগের দিন ও মিউ মিউ করে বলেছিল আরো কয়েকটা দিন ওর সঙ্গে থেকে যেতে। ওর বাবা মেয়ের চাওয়াকে না করে না কখনো, কিন্তু এবারে তিনি আর রাজি হলেন না। একটু অবাক হলাম তার অনাগ্রহ দেখে, অন্যদিকে আমারও কেমন যেন অস্বস্তি হচ্ছিল; তাই দেশে ফিরে এলাম ২৮ ফেব্রুয়ারিতে। ঢাকায় বিমানবন্দরে নেমেই শুনলাম আমার বড় দুলাভাই মারা গেছেন আমি রওনা দেওয়ার আগের দিন। আর এ জন্যই মেয়ে চাইলেও তার বাবা এবার আর আমার আমেরিকা থাকার সময় বাড়াতে রাজি হননি। আমার কাছে অনেকের দাবি থাকে তাদের একুশের বইমেলায় নিয়ে যাওয়া ও বই কিনে দেওয়া। হাতে মাত্র এক দিন ২৯ তারিখ (লিপইয়ার), আমার জন্যই যেন অপেক্ষা করছিল দিনটি। একসময় একুশের বইমেলা