সাম্প্রতিক

বিদায়ী বছরে ১ হাজার ৪১৩ জন ধর্ষিত

বিদায়ী বছরে ১ হাজার ৪১৩ জন ধর্ষিত

আমাদের মাঝ থেকে বিদায় নিচ্ছে ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ। এই বিদায়ী বছরে বাংলাদেশে এক হাজার ৪১৩ জন নারী ধর্ষিত ও ৩৮৮ জন মানুষ বিচার বহির্ভূত হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছেন। বছরের শেষদিনে আজ ৩১ ডিসেম্বর মঙ্গলবারজাতীয় প্রেস ক্লাবে ‘বাংলাদেশ মানবাধিকার পরিস্থিতি-২০১৯: আসক’র পর্যবেক্ষণ’ শিরোনামে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য তুলে ধরেন মানবাধিকার প্রতিষ্ঠান ‘আইন ও সালিশ কেন্দ্র’ (আসক)। আসকের জ্যেষ্ঠ উপ-পরিচালক নিনা গোস্বামী প্রতিবেদন তুলে ধরে বলেন, সংগৃহীত তথ্য অনুযায়ী ২০১৯ সালে সারা দেশে ধর্ষণ ও দলবেঁধে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক হাজার ৪১৩ জন নারী। এর মধ্যে ধর্ষণের পর হত্যার শিকার হয়েছেন ৭৬ জন এবং ধর্ষণের পর আত্মহত্যা করেছেন ১০ জন। ২০১৮ সালে ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন ৭৩২ নারী এবং ২০১৭ সালে এ সংখ্যা ছিল ৮১৮। গত বছরের তুলনায় ২০১৯ সালে শিশু নির্যাতনের ঘটনাও বেড়েছে বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। সংবাদ সম্
বছরজুড়েই চলেছে নারীর প্রতি সহিংসতা

বছরজুড়েই চলেছে নারীর প্রতি সহিংসতা

ইশরাত জাহান ঊর্মি এ বছরের এপ্রিলে সারাদেশকে নাড়া দেন নুসরাত নামে মাদ্রাসায় পড়া এক তরুণী। ধর্ষণ-নির্যাতন তো অনেকই হয় কিন্তু নুসরাত অনন্য। নুসরাতকে বলা হচ্ছে বহ্নিশিখা। আমরা বলছি, নুসরাত এক বহ্নিশিখা। পহেলা বৈশাখের ঠিক আগে আগে এই নারীটি তার মাদ্রাসা অধ্যক্ষের যৌন নিপীড়নের প্রতিবাদ করেন। থানায় মামলা করেন। এই ‘অপরাধে’ তার গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয় অধ্যক্ষের লোকেরা। কয়েকদিন হাসপাতালে যুদ্ধ করে অবশেষে মারা যান নুসরাত। কিন্তু এই মৃত্যু শোকের চেয়েও বেশি বয়ে আনে দ্রোহ আর ক্ষোভ। সারাদেশেই বিক্ষোভ হয়। এর ফলে নুসরাতের খুনিদের বিচারের রায় দ্রুত হয়। বরিশালে মিন্নি নামে এক তরুণীর স্বামীকে তার সামনেই কুপিয়ে মারা হয়। স্বামী রিফাত শরীফকে খুন হতে দেখে সে। আজব প্রশাসন এক সময় আসল ঘটনা আড়াল করে মিন্নিকেই গ্রেপ্তার করে। বছর শেষে এসব খবরের সঙ্গে যুক্ত হয় গত বছর বনানীর একটি হোটেলে দুই নারীকে ধর্ষণ করা আপন জুয়েলার্সে
‘লাঠিপেটা খাওয়ার জন্য আমরা জন্মাইনি’

‘লাঠিপেটা খাওয়ার জন্য আমরা জন্মাইনি’

ভারতের সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) ও জাতীয় নাগরিকপঞ্জির (এনআরসি) প্রতিবাদে মুখ খুললেন বিখ্যাত লেখক ও সমাজকর্মী অরুন্ধতী রায়। জাতীয় জনসংখ্যা নিবন্ধন (এনপিআর) মূলত এনআরসি’র ডাটাবেজ হিসেবে কাজ করবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ভুল ঠিকানা ও তথ্য দিয়ে এনপিআরের বিরোধিতা করা উচিত। বুধবার (২৫ ডিসেম্বর) দিল্লি ইউনিভার্সিটির বিক্ষোভকারী শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে তিনি এ কথা বলেন। অরুন্ধতী রায় বলেন, তারা আপনার বাড়িতে যাবে, আপনার নাম, ফোন নম্বর সংগ্রহ করবে; আধার কার্ড ও ড্রাইভিং লাইসেন্স দেখতে চাইবে। এসব তথ্য দিয়ে এনপিআর তৈরি করবে যা এনআরসি’র ডাটাবেজ হিসেবে কাজ করবে। তিনি বলেন, পরিকল্পনা করে আমাদের এর বিরুদ্ধে লড়তে হবে। তারা যখন আপনার বাসায় যাবে এনপিআরের তথ্যের জন্য, আপনার নাম জিজ্ঞেস করবে, তখন তাদের ভুল নাম বলুন। ঠিকানা জানতে চাইলে ভুল ঠিকানা বলুন। চরম বিভ্রান্তি তৈরি হওয়া চাই। মনে রাখবেন, আমরা লাঠিপেট
টানা কাজ করতে ৩০ হাজার নারী শ্রমিক জরায়ু কেটে ফেলেছেন

টানা কাজ করতে ৩০ হাজার নারী শ্রমিক জরায়ু কেটে ফেলেছেন

ভারতের মহরাষ্ট্র প্রদেশে কৃষি ক্ষেত্রে নারী শ্রমিকদের ভয়াবহ দুর্দশার চিত্র উঠে এসেছে এক কংগ্রেস নেতার চিঠিতে। মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি লিখে তিনি জানিয়েছেন, মজুরি পেতে হাজার হাজার নারী শ্রমিক জরায়ু কেটে বাদ দিচ্ছেন। ওই কংগ্রেস নেতা এ ব্যাপারে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরেকে অনুরোধ জানিয়েছেন। তবে রাজ্য সরকার এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া জানায়নি। মহারাষ্ট্র প্রদেশ কংগ্রেসের আদিবাসী শাখার চেয়ারম্যান নিতিন রাউত চিঠিতে লিখেছেন, আখ ক্ষেতে অনেক নারী শ্রমিক কাজ করেন। কিন্তু ঋতুস্রাবের সময় তারা সাধারণত সাত দিন কাজ করতে পারেন না। ফলে ওই সাত দিনের মজুরিও তারা পান না। ‘সেই মজুরি যাতে বাদ না যায় বা কাজে বিরতি না দিতে হয়, সে কারণেই অস্ত্রোপচার করে পুরো জরায়ু বাদ দিয়ে দেন। হিস্টেরেক্টমি নামে এই অস্ত্রোপচার করলে আর ঋতুস্রাব হয় না।’ চিঠিতে নিতিন রাউত জানিয়েছেন, প্রায় ৩০ হাজা
বার্সেলোনা শহরটি যেভাবে নারীবান্ধব হয়ে উঠলো

বার্সেলোনা শহরটি যেভাবে নারীবান্ধব হয়ে উঠলো

শহরগুলো জনবান্ধব হওয়া উচিত, কিন্তু সেটি আসলে হয়নি। বছরের পর বছর ধরে শহরের নকশা এবং নির্মাণ করে আসছেন পুরুষরা। কিন্তু নারীরা যদি শহর বানাতে শুরু করেন, তাহলে সেটি কেমন হবে? এর উত্তর হয়তো পাওয়া যাবে বার্সেলোনার কাছে। গত চার বছর ধরে এই শহরের মেয়র একজন নারী, যার নারীবান্ধব বেশ কিছু লক্ষ্য আছে। নগর নকশা নিয়ে কাজ করেন এরকম বেশ ক'জন নারীবাদী নকশাবিদের সঙ্গে কথা বলেছে বিবিসি এবং জানার চেষ্টা করেছে, নারীবান্ধব একটি শহর নির্মাণের জন্য কী ধরণের পরিবর্তন আনা দরকার? বার্সেলোনার নগরায়ন বিষয়ক কাউন্সিলর জ্যানেট স্যানয এই উদ্যোগটা শুরু করেছেন। এটা আসলে অনেক বড় আর উচ্চাকাঙ্ক্ষী একটি পরিকল্পনার অংশ। ''আপনি বিষয়টা নিয়ে ভাবুন,'' নকশা করা একটি সড়কের মাঝ দিয়ে সাবধানে হাঁটতে হাঁটতে বলছিলেন জ্যানেট। ''বার্সেলোনার প্রায় ৬০ শতাংশ স্থান গাড়ির কাজে ব্যবহার হচ্ছে। যখন আপনি এই জায়গ
গাণিতিক হিসেবে সবচেয়ে নিখুঁত সুন্দরী তিনি

গাণিতিক হিসেবে সবচেয়ে নিখুঁত সুন্দরী তিনি

গ্রিক গণিতবিদ্যার বিচারে বিশ্বের সেরা সুন্দরী হয়েছেন মার্কিন মডেল বেলা হাদিদ। সম্প্রতি ‘গোল্ডেন রেশিও অব বিউটি ফাই স্ট্যান্ডার্ডস’-এ সবচেয়ে নিখুঁত মুখশ্রীর অধিকারী হয়েছেন এ সুপার মডেল। এ পরিমাপে সবচেয়ে বেশি ৯৪ দশমিক ৩৫ শতাংশ নম্বর পেয়েছেন ২৩ বছর বয়সী এই সুপার মডেল বেলা। ডেইলি মেইল ও সিএনএন জানিয়েছে, বিশেষজ্ঞরা মূলত তারকাদের মুখের মাপ নিয়ে এই ফলাফল ঘোষণা করেছেন। গবেষণাটি পরিচালনা করেছেন লন্ডনের প্রসিদ্ধ ফেসিয়াল কসমেটিকস সার্জন জুলিয়ান ডি সিলভা। তারকাদের গোল্ডেন রেশিও পরিমাপ করে তিনি বলেন, মুখমণ্ডলের বিচারে বেলা হাদিদ পরিষ্কারভাবে বিজয়ী হয়েছেন। তার মুখই সবচেয়ে নিখুঁত। চিবুকের জন্য তিনি সর্বোচ্চ স্কোর করেছেন, ৯৯ দশমিক ৭ শতাংশ। যা নিখুঁত থেকে মাত্র দশমিক ৩ শতাংশ দূরে। তবে চোখের অবস্থানে নিখুঁত হওয়ার দিক থেকে তিনি স্কারলেট জোহানসনের পেছনে রয়েছেন। গড়নে বিয়ন্সে অনেক এগিয়ে থাকলেও কপাল ও ঠোঁট
মাঠে বসে ফুটবল খেলা দেখতে পারবেন ইরানি নারীরা

মাঠে বসে ফুটবল খেলা দেখতে পারবেন ইরানি নারীরা

প্রায় চার দশক পর আবার মাঠে বসে ফুটবল খেলা দেখার অনুমতি পেলেন ইরানি নারী দর্শকেরা। এর আগে নারীদের জন্য স্টেডিয়ামে প্রবেশ করা নিষেধ ছিলো। শিয়াপন্থী মুসলিম দেশটির পুরুষভিত্তিক বিতর্কিত নীতির বিরোধিতা করে ফিফা ফুটবল থেকে তাঁদের বহিষ্কার করার হুমকি দেয়। এ হুমকির পরিপ্রেক্ষিতে নারীদের জন্য স্টেডিয়াম খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় ইরান। খবর এএফপির। ইরান প্রায় ৪০ বছর ধরে ফুটবল এবং অন্যান্য স্টেডিয়ামে নারী দর্শকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। আলেমদের যুক্তি, নারীদের অবশ্যই পুরুষালি পরিবেশ এবং স্বল্প পোশাক পরা পুরুষদের নজর থেকে দূরে থাকা উচিত। বিশ্ব ফুটবলের পরিচালনা পর্ষদ ফিফা গত মাসে ইরানকে নির্দেশ দিয়েছিল, কোনো বিধিনিষেধ ছাড়াই টিকিটের চাহিদা অনুযায়ী নির্ধারিতসংখ্যক নারীকে স্টেডিয়ামে প্রবেশের অনুমতি দিতে হবে। ‘ব্লু গার্ল’ নামে পরিচিত এক নারী ভক্ত একটি ম্যাচ দেখতে ছেলেদের পোশাক পরে স্টেডিয়ামে য
জার্মানি এখনো বাল্য বিবাহ চ্যালেঞ্জে

জার্মানি এখনো বাল্য বিবাহ চ্যালেঞ্জে

বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে দুই বছর আগে জার্মানিতে একটি আইন কার্যকর হলেও তা বেশি কাজে আসেছ না বলে এক গবেষণায় উঠে এসেছে৷ নারী অধিকার গোষ্ঠী টেরে ডেস ফেমেস-এর গবেষণায় বলা হয়েছে, ''ওই আইন কার্যকরের পর থেকে প্রতি সপ্তাহেই জার্মানিতে বাল্যবিয়ে হচ্ছে৷ এই আইনের কার্যকারিতা নগণ্য৷'' বাল্যবিয়ের বিরুদ্ধে লড়াই করতে ২০১৭ সারের ২২ জুলাই এ সংক্রান্ত আইন কার্যকর করে জার্মানি৷ নতুন আইনে বিয়ের ন্যূনতম বয়স নির্ধারণ করা হয় ১৮ বছর৷ পরিসংখ্যান তুলে টেরে ডেস ফেমেসের গবেষণায় বলা হয়েছে, এই আইনটি কার্যকর হওয়ার পর সারা দেশে কমপক্ষে ৮১৩টি বাল্যবিবাহ নিবন্ধিত হলেও এর মধ্যে মাত্র ১০টি বাতিল করা হয়েছে৷ এই আইন অনুযায়ী, কম বয়সের কারো বিয়ে দেয়া হলে আপনাআপনি বাতিল হয়ে যাওয়ার কথা৷ টেরে ডেস ফেমেসের বিশেষজ্ঞ মনিকা মিশেল বলেন, ‘‘পরিসংখ্যানগুলো সংকলন করা খুব কঠিন ছিল৷ আমরা বিশ্বাস করি, পরিসংখ্যানগুলোর চেয়ে বাল্যবিবাহের আসল
স্কার্টের নীচের ছবি তোলায় নিষেধাজ্ঞার উদ্যোগ

স্কার্টের নীচের ছবি তোলায় নিষেধাজ্ঞার উদ্যোগ

জার্মানির আইনে ফাঁক থাকায় গোপনে কারো পোশাকের, বিশেষ করে স্কার্টের নীচ থেকে ছবি তুললে সেটা অপরাধ হিসেবে বিবেচনা হয়না৷ আইনের এই ফাঁক বন্ধে উদ্যোগ নেয়ার দাবি উঠেছে৷ জার্মানির বিচারমন্ত্রী ক্রিস্টিনে লাম্বরেশ্ট্ মঙ্গলবার জানিয়েছেন যে তিনি এমন একটি আইন সংসদে উপস্থাপনের পরিকল্পনা করছেন যা গোপনে কারো পোশাকের নীচে থাকা শরীরের অংশের ছবি তোলাকে, ইংরেজিতে যাকে বলা হয় আপস্কার্টিং, অপরাধ হিসেবে বিবেচনা করবে৷ লাম্বরেশ্ট্ বলেন, ‘‘আপস্কার্টিং হচ্ছে মেয়েদের ব্যক্তিগত গোপনীয়তায় জঘন্য অনুপ্রবেশ... আর এজন্যই আমি এই ব্যাপারটি বন্ধে আইন পরিবর্তনের উদ্যোগ নিয়েছি৷'' প্রসঙ্গত, জার্মানিতে কোন নারীর স্কার্টের নীচের অংশের ছবি গোপনে তোলাকে অপকর্ম মনে করা হলেও সেটি শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে বিবেচনা করা হয় না যতক্ষণ পর্যন্ত সেই নারীকে মৌখিকভাবে অপমান বা শারীরিকভাবে আঘাত করা হয়৷ তবে, ছবিটি যদি সেই নারীর দু
বাবাকে হত্যা করেও রাশিয়ানদের হৃদয় ছুঁয়েছে তিন বোন

বাবাকে হত্যা করেও রাশিয়ানদের হৃদয় ছুঁয়েছে তিন বোন

রাশিয়ার মস্কোয় কিশোরী তিন বোন ঘুমিয়ে থাকা অবস্থায় তাদের বাবাকে ছুরিকাঘাত এবং আঘাত করে হত্যা করে। ঘটনাটি ঘটে ২০১৮ সালের জুলাই মাসে। এই বোনদের বিরুদ্ধে হত্যাকাণ্ডের অভিযোগ থাকলেও তাদের ভবিষ্যৎ কী হবে, তা নিয়ে রাশিয়ায় উত্তপ্ত বিতর্ক শুরু হয়েছে। এর মধ্যেই তিন লাখ মানুষ একটি পিটিশন সই করে তাদের মুক্তি দেয়ার আহবান জানিয়েছে। কেননা তদন্তকারীরা নিশ্চিত হয়েছেন যে, মেয়েদের বাবা বছরের পর বছর ধরে তাদের শারীরিক এবং মানসিকভাবে পীড়ন করে আসছিলেন। বাবার কি হয়েছিল? ২০১৮ সালের জুলাই মাসের বিকালে ৫৭ বছরের মিখাইল খাচাতুরিয়ান তার তিন মেয়ে, ক্রিস্টিনা, অ্যাঞ্জেলিনা এবং মারিয়াকে একে একে ডেকে পাঠান। তিনজনই সে সময় ছিল অপ্রাপ্তবয়স্ক। ফ্ল্যাট পরিষ্কার পরিছন্ন করে না রাখার জন্য তিনি তাদের বকাঝকা করেন এবং মুখে পেপার গ্যাস স্প্রে করেন। কিছুক্ষণ পরে তিনি ঘুমিয়ে পড়লে মেয়েরা ছুরি, হা