You are here
নীড়পাতা > সংবাদ > বাংলাদেশ > বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীকে বহিষ্কার করছে না কানাডা

বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীকে বহিষ্কার করছে না কানাডা

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক জানিয়েছেন, বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীর রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন বাতিল করে তাকে কানাডা থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের যে খবর বাংলাদেশের গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে, তা সঠিক নয়।

সচিবালয়ে শনিবার সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। আইনমন্ত্রী বলেন, “বাংলাদেশের পত্রিকাগুলোতে এ রকম খবর পাওয়ার পরে আমাকে নিউ ইয়র্ক থেকে মাননীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফোন করেছিলেন। আমাদের ‍দুজনের আলোচনার প্রেক্ষিতে এই খবরটার সত্যতা জানতে কানাডায় বাংলাদেশের হাই কমিশনের সঙ্গে যোগাযোগ করি এবং সেখানকার হাই কমিশনার জানান, এই সংবাদটি সর্বৈব অসত্য। তিনি তার জায়গা থেকে কনফার্ম করেছেন এটার কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি।”

আনিসুল হক বলেন, কানাডায় বাংলাদেশের হাই কমিশনার ওই দেশের সাংবাদিকদের পাশাপাশি নূর চৌধুরীর আইনজীবীর সঙ্গেও যোগাযোগ করেছেন। এছাড়া কানাডার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বাংলাদেশ ডেস্কেও হাই কমিশনের পক্ষ থেকে যোগাযোগ করে ওই সংবাদের কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, নূর চৌধুরী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হত্যা মামলায় মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামী। তিনি ১৯৭৫ সালের নভেম্বরে বাংলাদেশ ত্যাগ করেন। ১৯৭৬ সালে তাকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আত্মীকরণ করা হয়।

কানাডা মৃত্যুদণ্ডাদেশের বিপক্ষে। তাই সাবেক সেনা কর্মকর্তা নূর চৌধুরীকে ফাঁসিতে ঝুলতে ফেরত পাঠাতে অস্বীকৃতি জানিয়ে আসছিল দেশটি। কানাডার আইন অনুযায়ী, মৃত্যুদণ্ডাদেশ প্রাপ্ত কোনও ব্যক্তি কানাডায় অভিবাসী হলে এবং  জীবনাশঙ্কার কথা জানিয়ে আবেদন করলে সেই ব্যক্তিকে তার দেশে ফেরত পাঠানো হয় না।

প্রসঙ্গত, আলোচনার মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীকে দেশে ফেরত পাঠানোর উপায় বের করতে মতৈক্যে পৌঁছেছে বাংলাদেশ ও কানাডা। হায়াত রিজেন্সি মন্ট্রিলে গত ১৬ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে এ ব্যাপারে মতৈক্য হয়।

এরপর গত ২২ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশের কয়েকটি সংবাদপত্রে খবর ছাপা হয় যে নূর চৌধুরীর রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন বাতিল করে তাকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কানাডা।

সূত্র: বিডিনিউজ২৪

 

 

Similar Articles

Leave a Reply