বিয়ের প্রলোভনে শারীরিক সম্পর্ক, অন্তঃসত্ত্বা স্কুলছাত্রী  - Women Words

বিয়ের প্রলোভনে শারীরিক সম্পর্ক, অন্তঃসত্ত্বা স্কুলছাত্রী 

উইমেন ওয়ার্ডস ডেস্ক :: বরিশাল জেলার উজিরপুর উপজেলায় প্রেমিকের বিয়ের প্রলোভনে শারীরিক সম্পর্কের পর অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রী ছয় মাসের অন্তঃস্বত্তা হয়েছে। এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর প্রেমিক আগুন বালীকে (২১) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

উজিরপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জিয়াউল আহসান আমাদের সময়কে এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘গতকাল বুধবার ভুক্তভোগী ছাত্রীর মা বাদী হয়ে আগুন বালীর বিরুদ্ধে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। মামলার ভিত্তিতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে আগুন বালীকে আদালতে হাজির করা হলে বিচারক তাকে বরিশাল কারাগারে পাঠায়।’

ধর্ষণ মামলার এজাহারে ওই ছাত্রীর মা উল্লেখ করেন, উপজেলার শোলক ইউনিয়নের কচুয়া গ্রামের ইদ্রিছ বালীর ছেলে আগুন বালীর প্রতিবেশী তারা। তার মেয়ে স্থানীয় একটি স্কুলে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী। স্কুলে যাতায়াতের সময় আগুন বালী তাকে ফুসলিয়ে প্রেমের ফাঁদে ফেলে। বিভিন্ন সময় আগুন তার মেয়েকে মোবাইল ফোনে অশ্লীল ভিডিও পাঠাত ও কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। এতে রাজি না হওয়ায় আগুন তার মেয়েকে বিয়ের প্রলোভন দেখায়।

এজাহারে আরও বলা হয়, গত ৭ মাস আগে তারা বাড়িতে না থাকায় আগুন তাদের ঘরে ঢুকে মেয়েকে ধর্ষণ করে। পরে তার মেয়ে বিয়ের কথা বললে নানা তালবাহানা শুরু করে আগুন। একপর্যায়ে যোগযোগ বন্ধ করে দেয়। সম্প্রতি তার মেয়ে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে।

উজিরপুর মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মাহাবুব হোসেন বলেন, ‘সম্প্রতি শারীরিক অবস্থায় পরিবর্তনের কারণে পরিবারকে বিষয়টি জানায় ভুক্তভোগী ছাত্রী। পরে তার মা থানায় এসে মামলা দায়ের করেন। গতকালই আগুনকে গেপ্তার করা হয়।’

থানার ওসি মো. জিয়াউল আহসান বলেন, ‘ভুক্তভোগীর স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (শেবাচিম) পাঠানো হয়েছে। তার জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়েছে।’