ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২০ - Women Words

Day: ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২০

সেনাবাহিনীতে নারী কমান্ডার চায় না ভারত সরকার

সেনাবাহিনীতে নারী কমান্ডার চায় না ভারত সরকার

অমিতাভ ভট্টশালী ভারত সরকার দেশের সুপ্রিম কোর্টকে জানিয়েছে সেনাবাহিনীতে নারী অফিসারদের নেতৃত্বদানকারী পদ দেওয়াটা অনুচিত হবে। নারীরা কোনও অংশেই পুরুষদের থেকে কম নন, এটা স্বীকার করেও বলা হয়েছে যে কমান্ডিং অফিসার পদে যদি নারীরা থাকেন তাহলে বাহিনীর সদস্যরা, যাদের অধিকাংশই গ্রামাঞ্চল থেকে আসেন, তারা নারী অফিসারকে নাও মেনে নিতে পারেন। এছাড়াও নারীদের শারীরিক ও মানসিক ক্ষমতা পুরুষ অফিসারদের থেকে কম এবং যদি যুদ্ধ-বন্দী হিসাবে নারী অফিসাররা ধরা পড়েন শত্রু দেশের হাতে, তখন তাদের বেশি বিপদের মুখে ঠেলে দেওয়া হবে - এইসব যুক্তিও দেখানো হয়েছে। প্রাক্তন সেনা কর্মকর্তা থেকে শুরু করে আইনজীবী - অনেকেই সরকারের এই পুরুষতান্ত্রিক মনোভাবের সমালোচনা করছেন। সুপ্রিম কোর্টের যে বেঞ্চে এই সংক্রান্ত মামলাটির শুনানি চলছে, তারাও বলেছে মানসিকতার পরিবর্তন হলেই নারী অফিসারদের কমান্ডার হিসাবে নিয়োগ করা যায়। ১৯৯২
অসংখ্য নারীকে যৌন হয়রানি, সিসিটিভিতে ধরা পড়ল দৃশ্য

অসংখ্য নারীকে যৌন হয়রানি, সিসিটিভিতে ধরা পড়ল দৃশ্য

ভারতের মুম্বইয়ের নির্জন এক রেলসেতু। এখানে দেখা মিল‌ত সেই তরুণের। সাদা শার্ট ও নীল জিন্স পরিহিত সেই তরুণ জনহীন সেতুতে কোনো তরুণীর দেখা পেলেই ছুটে যেত। তারপর সেই তরুণীকে খারাপ ভাবে স্পর্শ ও চুম্বন করত। তারপর তাদের হতভম্ব অবস্থায় রেখে দৌড়ে পালিয়ে যেত। অবশেষে সেই অভিযুক্ত তরুণকে সনাক্ত করল পুলিশ। মুম্বাইয়ের মাতুঙ্গা রেলসেতুতে তাকে দেখা যেত নারীদের নিগ্রহ করতে। সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়েছে সেই তরুণের কাণ্ড। গতকাল বৃহস্পতিবার চুরির মামলায় ধরা পড়ে সেই তরুণ। পুলিশ জানিয়েছে, সেই তরুণের বিরুদ্ধে চুরির অভিযোগ ওঠায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এরপরই পুলিশ সনাক্ত করে ফেলে ওই তরুণকে। বুঝতে পারে, এই তরুণকেই সিসিটিভিতে তাকে দেখা গেছে। তবে পুলিশ এখনো কোনো শ্লীলতাহানির অভিযোগ দায়ের করেনি। আক্রান্ত নারীরা এগিয়ে এসে অভিযোগ দায়ের করবেন, আপাতত সেই অপেক্ষায় পুলিশ। সিসিটিভিতে শেষবার ওই তরুণকে দেখা গেছে ২৫ জানুয়া
স্বামী-সন্তানকে আটকে স্ত্রীকে ধর্ষণ

স্বামী-সন্তানকে আটকে স্ত্রীকে ধর্ষণ

উইমেন ওয়ার্ডস ডেস্ক :: চট্টগ্রাম নগরের বায়েজিদ বোস্তামী থানার ট্যানারি বটতল এলাকায় স্বামী-সন্তানকে জিম্মি করে এক নারীকে ধর্ষণের অভিযোগে মাসুদুল হাসান চৌধুরী জিকু (২৮) নামেএক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত বুধবার গভীর রাতে তাকে বাসা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এক মহিলার স্বামী থানায় এসে অভিযোগ করলে ওই মহিলার বাসায় অভিযান চালিয়ে জিকুকে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশ সূত্রে জানা যায়,  জিকুর দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে চান্দাগাঁও থানার রাহাত্তারপুলে অভিযান চালিয়ে হেলাল (৩০) নামে আরও একজনকে ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার করা হয়। দুজনের কাছে মোট ৫১০ পিস ইয়াবা পাওয়া গেছে বলে পুলিশ জানায়। জিকুর বিরুদ্ধে ওই নারী বাদী হয়ে ধর্ষণের অভিযোগে একটি মামলা ও পুলিশ বাদী হয়ে দুজনের বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা করেছে। গ্রেপ্তারকৃত জিকু আলোচিত সন্ত্রাসী অমিত মুহুরির সহযোগি ছিল। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বায়োজিত বোস্তামি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মক