কিশোরী ধর্ষণ ঘটনায় চা শ্রমিক আটক | | Women Words

কিশোরী ধর্ষণ ঘটনায় চা শ্রমিক আটক

মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর চা বাগানে কিশোরী (১২) ধর্ষণের ঘটনায় সজিব মাঝি (২৪) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। অভিযুক্ত যুবক চা শ্রমিক হিসেবে কর্মরত।

আজ ১ ফেব্রুয়ারি শনিবার বিকেলে শমসেরনগর চা বাগান এলাকা থেকে তাকে আটক করে স্থানীয় ফাঁড়ি পুলিশ।

সূত্র জানায়, শুক্রবার বিকেল ৪টার দিকে শমশেরনগর চা বাগানের নারায়ণ টিলা প্লান্টেশন এলাকায় প্রাকৃতিক কাজ সারতে গিয়েছিল কিশোরী। সেখান থেকে ফেরার পথে চা শ্রমিক সজিব মাঝি কৌশলে নির্জন স্থানে নিয়ে যান কিশোরীকে। সেখানে প্রায় চারঘন্টা আটকে রেখে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ মিলেছে।

রাত ৮টায় বাগান থেকে মুক্তি পেয়ে কিশোরী বাড়িতে ফিরে আসে। ঘটনাটি অভিভাবকদের জানালে তারা আইনী পদক্ষেপের সিদ্ধান্ত নেন। শনিবার দুপুরে কিশোরী ও তার মা উপস্থিত হন শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়িতে।

ধর্ষণের অভিযোগ শুনে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) অরুপ কুমার চৌধুরী অআসামি গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেন। এএসআই সৈকতের নেতৃত্বে পুলিশের একটি টিম দ্রুত অভিযান চালিয়ে সজিব মাঝিকে আটক করে। গ্রেপ্তার করা সজিব শমসেরনগর চা বাগানের মৃত সন্টু মাঝির ছেলে।

কিশোরীর মা জানান, সকালে কাজে গেলে বাড়িতে কিশোরী মেয়ে একা থাকত। তখন বখাটে সজিব নানাভাবে উত্যক্ত করে আসছিল। শুক্রবার সুযোগ পেয়ে তাকে বাগানে আটকে রেখে ধর্ষণ করে।

পুলিশ কর্মকর্তা অরুপ কুমার চৌধুরী বলেন, ‘অভিযুক্ত যুবককে আটক করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হবে।’