কিশোরী মডেলের শ্লীলতাহানির পর গোপনাঙ্গ কালোবাজারে বিক্রি! | | Women Words

কিশোরী মডেলের শ্লীলতাহানির পর গোপনাঙ্গ কালোবাজারে বিক্রি!

কিশোরী মডেলকে হত্যা করে তার জরায়ু কেটে কালোবাজারে বিক্রি করার অভিযোগ উঠেছে। নিহতের বাবা ওই অভিযোগ করেছেন। পুলিশ জানিয়েছে, রাশিয়ার বিখ্যাত মডেল সোফিয়া ল্যানসাকোভাকে হত্যার পর তার গোপনাঙ্গ শরীর থেকে কেটে নিয়ে গেছে হত্যাকারীরা।

এছাড়া তার শরীরের আরো অঙ্গ কেটে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। ১৬ বছর বয়সী ওই মডেলের পরিবার বলছে, পরিবারের লোকদের সঙ্গে তুরস্কের আন্তালইয়া প্রদেশে ঘুরতে গিয়েছিলেন ওই কিশোরী। তবে সেখানে যাওয়ার পর প্রচণ্ড পেট ব্যাথা হতে থাকে তার। একপর্যায়ে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর জানা যায়, তার অ্যাপেনডিকস হয়েছে।

ব্যাথার কারণে একপর্যায়ে কিশোরী মারা যান। তবে তার অভিভাবকের অভিযোগ, তাদের মেয়েকে হত্যা করে অঙ্গ কেটে নেওয়া হয়েছে এবং তা বাজারে বিক্রি করে দেওয়ার জন্যই করা হয়েছে।

রাশিয়ার সরকারি কর্মকর্তারাও বলছেন, ওই কিশোরীর দেহ থেকে জরায়ু কেটে নেওয়া হয়েছে। এছাড়া শরীরের আরো কিছু অঙ্গ কেটে নেওয়া হয়েছে।

এদিকে তুরস্কের চিকিৎসকরা ওই কিশোরীর মৃত্যুর কারণ হিসেবে যা উল্লেখ করেছেন, রাশিয়ার চিকিৎসকরা মরদেহে ময়নাতদন্তের পর অন্য কারণে মৃত্যুর কথা বলেছেন। সামনের মাসেই ময়নাতদন্তের পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন পাওয়া যাবে। তারপরই ঘটনার নেপথ্য কাহিনী বেরিয়ে আসবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।