আগস্ট ৩০, ২০১৯ - Women Words

Day: আগস্ট ৩০, ২০১৯

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ড্রতে ‘বাংলাদেশি’ নারীর কীর্তি

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ড্রতে ‘বাংলাদেশি’ নারীর কীর্তি

বৃহস্পতিবার রাতে টিভি সেটের সামনে বসে উয়েফার বর্ষসেরা পুরস্কার বিতরণী ও উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ড্র অনুষ্ঠানটা নিশ্চয় দেখেছেন? অনুষ্ঠান দেখে থাকলে উপস্থাপিকার প্রতি চোখ আটকে যাওয়ার কথা! কালো ড্রেস, মাথা ভর্তি কালো চুল, মিষ্টি চেহারার সুন্দরী উপস্থাপকিাকে দেখে কী দেশি দেশি মনে হয়েছে? মনে হোক বা না হোক, মোনাকোর পুরস্কার বিতরণ ও ড্র অনুষ্ঠানের সৌন্দর্য আর আকর্ষণ বৃদ্ধি করা সুন্দরী উপস্থাপিকা একজন ‘বাংলাদেশি’ই। ‘বাংলাদেশি’ মানে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত। তার জন্ম ১৯৭৭ সালে, ইংল্যান্ড প্রবাসী বাংলাদেশি মুসলিম পরিবারে। বাবা-মা দু’জনই বাংলাদেশি। তো বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এই নারীই উয়েফার পুরস্কার বিতরণ ও চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ড্র অনুষ্ঠানে গড়ে ফেললেন অনন্য এক কীর্তি। করে ফেললেন ‘হ্যাটট্রিক’। এ নিয়ে টানা তৃতীয়বারের মতো চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ড্র অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করার কৃতিত্ব দেখালেন তিনি। এক ম্যাচে কোনো ফুটবলা
একাত্তর প্রসঙ্গে অরুন্ধতীকে একহাত নিলেন তসলিমা

একাত্তর প্রসঙ্গে অরুন্ধতীকে একহাত নিলেন তসলিমা

কাশ্মীর ইস্যুতে ভারত-পাকিস্তানের চলমান যুদ্ধবস্থার মাঝে নতুন বিতর্কের জন্ম দিয়েছিলেন প্রখ্যাত ভারতীয় লেখিকা অরুন্ধতী রায়। হুট করেই গত পরশু থেকে ৯ বছর আগের এক ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল সাইটে। সেই ভিডিওতে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর 'প্রশংসা' করতে শোনা যায় অরুন্ধতীকে। একাত্তরে পাক হানাদার বাহিনীকে পরাজিত করা স্বাধীন বাংলাদেশও জড়িয়ে পড়ে অরুন্ধতীর এই ভিডিও বিতর্কে। ২০১১ সালের এক আলোচনায় অরুন্ধতী বলেছিলেন, 'ভারত তার দেশের দক্ষিণ পূর্ব, তেলেঙ্গানা, গোয়া এবং কাশ্মীরে যেভাবে সেনাবাহিনী নামিয়েছে, পাকিস্তান তার সেনাবাহিনীকে এভাবে জনগণের বিরুদ্ধে নামায়নি।' কিন্তু ১৯৭১ সালে বাঙালিদের ওপর যে ভয়াবহ গণহত্যা চালিয়েছিল তখনকার অবিভক্ত পাকিস্তান সরকার; অরুন্ধতী সেটা এড়িয়ে যাওয়ায় দুই বাংলায় তীব্র সমালোচনা শুরু হয়। এ প্রসঙ্গে বুকারজয়ী এই ভারতীয় লেখক বলেছেন, তার ৯ বছর আগের এক সাক্ষাৎকারের এক ভিডিও ক্লিপ থেকে যে বিভ্
কিশোরী মডেলের শ্লীলতাহানির পর গোপনাঙ্গ কালোবাজারে বিক্রি!

কিশোরী মডেলের শ্লীলতাহানির পর গোপনাঙ্গ কালোবাজারে বিক্রি!

কিশোরী মডেলকে হত্যা করে তার জরায়ু কেটে কালোবাজারে বিক্রি করার অভিযোগ উঠেছে। নিহতের বাবা ওই অভিযোগ করেছেন। পুলিশ জানিয়েছে, রাশিয়ার বিখ্যাত মডেল সোফিয়া ল্যানসাকোভাকে হত্যার পর তার গোপনাঙ্গ শরীর থেকে কেটে নিয়ে গেছে হত্যাকারীরা। এছাড়া তার শরীরের আরো অঙ্গ কেটে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। ১৬ বছর বয়সী ওই মডেলের পরিবার বলছে, পরিবারের লোকদের সঙ্গে তুরস্কের আন্তালইয়া প্রদেশে ঘুরতে গিয়েছিলেন ওই কিশোরী। তবে সেখানে যাওয়ার পর প্রচণ্ড পেট ব্যাথা হতে থাকে তার। একপর্যায়ে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর জানা যায়, তার অ্যাপেনডিকস হয়েছে। ব্যাথার কারণে একপর্যায়ে কিশোরী মারা যান। তবে তার অভিভাবকের অভিযোগ, তাদের মেয়েকে হত্যা করে অঙ্গ কেটে নেওয়া হয়েছে এবং তা বাজারে বিক্রি করে দেওয়ার জন্যই করা হয়েছে। রাশিয়ার সরকারি কর্মকর্তারাও বলছেন, ওই কিশোরীর দেহ থেকে জরায়ু কেটে নেওয়া হয়েছে। এছাড়া শরীরের আরো কিছু অঙ্গ কেটে নেওয়