১৬ বছরের অনশন ভাঙলেন শর্মিলা, হতে চান মুখ্যমন্ত্রী - Women Words

১৬ বছরের অনশন ভাঙলেন শর্মিলা, হতে চান মুখ্যমন্ত্রী

টানা ১৬ বছর পর আর মঙ্গলবার অনশন ভাঙলেন ভারতের ইরম চানু শর্মিলা। দেশটির মণিপুর রাজ্যে সেনাবাহিনীর বর্বরতার প্রতিবাদে পৃথিবীর ইতিহাসে দীর্ঘতম এ অনশন পালন করেন তিনি।

শর্মিলাকে ইম্ফল জেলা আদালত আজ জামিনে মুক্তিও দিয়েছে। মণিপুরের পরবর্তী বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চলেছেন তিনি। এ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হতে চান বলে জানিয়েছেন তিনি।

৪৪ বছর বয়সী শর্মিলা ২০০০ সালে ১ নভেম্বর অনশন শুরু করেছিলেন। টানা ১৬ বছর ধরে অনশনের সময় এই নারী কোনো খাবার খাননি। মণিপুরের রাজধানী ইম্ফলের একটি কারা হাসপাতালে তাঁর নাকে পাইপ দিয়ে জোর করে খাওয়ানো হয়।

ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে ২০০০ সালে মণিপুরের ১০ অধিবাসী নিহত হন। এ ঘটনার প্রতিবাদে সশস্ত্র বাহিনীর বিশেষ ক্ষমতা আইন বা আফস্পা প্রত্যাহারের দাবিতে অনশন শুরু করেন তিনি। আত্মহত্যার চেষ্টার অভিযোগে শর্মিলাকে গ্রেপ্তার করা হয়। সেই থেকে হাসপাতালের ওয়ার্ডেই বন্দি থেকেছেন তিনি। বলপূর্বক নাকে নল ঢুকিয়ে তাঁকে তরল খাবার দেওয়া হচ্ছিল এত দিন ধরে।

সুপ্রিম কোর্ট সম্প্রতি জানিয়েছে, ভারতের যে সব রাজ্যে আফস্পা জারি রয়েছে (যেমন কাশ্মীর ও উত্তর পূর্বের কয়েকটি রাজ্য), সেখানেও যা খুশি তাই করতে পারবে না সেনাবাহিনী। সুপ্রিম কোর্টের এই নির্দেশের পরে গত ২৭ জুলাই আদালতে দাঁড়িয়ে অনশন প্রত্যাহার করার ঘোষণা দিয়েছিলেন ৪৪ বছরের শর্মিলা। সেদিন তিনি জানান, অনশন ভেঙে প্রেমিক ডেসমন্ড কুটিনহোর সঙ্গে ঘর বাঁধতে চান।