শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৯:৩৩ পূর্বাহ্ন

বিয়েতে রাজি না হওয়ায় কলেজ ছাত্রীকে ছুরিকাঘাত

বিয়েতে রাজি না হওয়ায় কলেজ ছাত্রীকে ছুরিকাঘাত

বিয়ের প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলায় এক কলেজ ছাত্রীকে ছুরি দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে এক বখাটে।

আহত ছাত্রীর নাম ঝুমা আক্তার সুমা। সে স্থানীয় ইছামতি ডিগ্রি কলেজের উচ্চমাধ্যমিক শ্রেণির প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আজ রোববার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী জানান, উপজেলার মানিকপুর ইউনিয়নের রসুলপুর গ্রামের মুসলিম উদ্দিনের মেয়ে সুমাকে গত কিছুদিন থেকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল একই গ্রামের আব্দুল গফুরের ছেলে ও একই কলেজের শিক্ষার্থী বাহার উদ্দিন। কিন্তু সুমা সেই প্রস্তাব প্রত্যাখান করেন। আজ দুপুরে স্থানীয় কালীগঞ্জ বাজারে যাওয়ার পথে বাহার তার ওপর হামলা চালায়। ছুরিকাঘাত করে আহত করে এক সময় পালিয়ে যায়।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আবদুল কাদির বলেন, ‘আজ সকালে রসুলপুর গ্রামে একটি বাড়িতে আমরা সালিশি বৈঠকে ছিলাম। এসময় সুমার মা দৌড়ে এসে তার মেয়েকে বাঁচাতে বলেন। আমরা দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে সুমাকে রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখি। এসময় সে জানায়, বাহার তাকে ছুরি দিয়ে কুপিয়ে পালিয়ে গেছে।’
রক্তাক্ত অবস্থায় সুমাকে প্রথমে স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে  এবং পরে ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

তিনি বলেন, বাহার গত কিছুদিন ধরে সুমাকে বিয়ের প্রস্তাব দিচ্ছিল বলে আমরা জানতে পেরেছি। তবে বাহারের প্রস্তাবে সুমা রাজি হচ্ছিল না।’ ঝুমার হাতে তিনটি এবং পেটে একটি ছুরিকাঘাত রয়েছে বলে তিনি জানান।

সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুজ্ঞান চাকমা জানান, সুমার বাম হাত ও পেটে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। তার হাতে অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। সে এখন আশঙ্কামুক্ত বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

ঘটনার পর থেকে বাহার পালাতক। তাকে ধরতে পুলিশ কাজ শুরু করেছে বলেও তিনি জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © 2015 womenwords.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ