নূরপুরের বিশ্বকাপ

শাহনেওয়াজ কাকলী আমাদের পাড়ার নাম নূরপুর। সত্যি সে সময় যেন নূরের আলোয় মাখা একটি "পুর" মনে হত। পাড়ার সকল বাড়িগুলোর ব্যবচ্ছেদ ছিল শুধু নির্মাণ দালানকোঠায় কিন্তু সবার সাথে সবার আত্মিক কোন দেয়াল চোখে পড়তো না। মনে হতো সব খালারা যেন আম্মার বোনই ছিল। আমরা তাই ঈদে সবার বাড়িতে বাড়িতে একবার না

‌‘আমার এই পথ-চাওয়াতেই আনন্দ’

অদিতি দাস পথ চলার আজ দ্বিতীয়বর্ষ অতিক্রম করলো উইমেন ওয়ার্ডস । মাত্র দুই বছর! মহাকালের বিশালতায় এ সংখ্যা নগণ্যই। তবে আমার জন্য, পোর্টালটির জন্য এ সময়টুকু যেন বন্ধুর পথযাত্রায় যুগ যুগ পাড়ি দেওয়ার মতোই কঠিন, কন্টকাকীর্ণ যেরকম তেমনি আনন্দময়, কোন কোন ক্ষেত্রে তৃপ্তিরও বটে। ‘নারী’। আলো ঝলমলে একবিংশ শতাব্দির উৎকর্ষে, তথ্য-প্রযুক্তির বিপ্লবের যুগে, আধুনিক

শুভ জন্মদিন

রোমেনা লেইস যে গায়ক আজ গান গেয়ে আসর মাত করছে, সে কিন্তু একদিনে তৈরি হয়নি। সুরের সাধনা করে করে, একদিন সাহস করে মঞ্চে ওঠে গায় দর্শকদের সামনে। যুতসই একটা প্লাটফর্ম একজন গায়ককে সহজেই পৌঁছে দেয় দর্শকদের কাছাকাছি। ঠিক তেমনি একজন লেখক কিন্তু একদিনে লেখক হয়ে ওঠেন না। লিখতে লিখতে একসময় মনে

একজন ‘ধর্ষিতা’ মেয়ের চিঠি

সাগর দাশ প্রিয় মা, আমার প্রণাম নিও, আর পারলে আমাকে ক্ষমা করে দিও। মাগো হয়তো আর কোনদিন তোমাকে মা বলে ডাকবো না। কলেজ থেকে বাসায় ফিরে আর তোমাকে বলব না যে, খুব ক্ষিদে পেয়েছে- আমাকে ভাত দাও। ছোট ভাই প্রিতমের সাথে হয়ত আর টিভির চ্যানেল পাল্টানো নিয়ে ঝগড়া করবো না। মাগো,

‘মেয়েরা পেটে কথা রাখতে পারেনা’!

তুলনা আহাদ মেয়েরা নাকি পেটে কথা রাখতে পারেনা! অথচ, জানেন কি, একটা মেয়ের গোটা জীবনটাই যায় কথা চেপে রাখতে রাখতে! শৈশব, যৌবন, বার্ধক্য সবটা জুড়েই কত কথা যে মেয়েদেরকেকে আড়াল করে রাখতে হয়, তার হিসেব কেউ জানেনা। মায়ের কাছে ধরা পড়ে যেতে যেতে একটা মেয়ে নিজের প্রেমের কথা, ভালোবাসার মানুষের কথা

স্ত্রী’র অসম্মান হয়, এমন প্রথা বন্ধ করা আপনার দায়িত্ব

রাহিমা বেগম ভালবেসে ভালবাসুন। ভালবাসার মানুষটাকে শ্রদ্ধা করুন। ভালবাসায় পারস্পরিক শ্রদ্ধাবোধ কাজ না করলে ভালবাসা তার মাধুর্যতা আর পূর্ণতা হারায়। আপনার সামান্যতম অমনোযোগিতা অনেকসময় সেই শ্রদ্ধাবোধের স্থানকে আপনার অজান্তেই নষ্ট করে দেয়। আপনি যতটা মনোযোগের সহিত আপনার প্রিয় সঙ্গীর আত্মসম্মানবোধের জায়গাগুলো চিহ্নিত করে তা সমুন্নত রাখার চেষ্টা করবেন, ততই তার প্রতি

‘আমি সেই অধর্মের বিরুদ্ধে কথা বলি’

জেসমিন চৌধুরী না, আমি ধর্মের বিরুদ্ধে কথা বলি না। ধর্মের নামে যে অধর্ম ছড়িয়ে পড়েছে সমাজের কোণায় কোণায়, যে অধর্মের নামে ঘটে অন্ধকারের বেসাতি, রক্তক্ষয়ের উৎসব, আমি সেই অধর্মের বিরুদ্ধে কথা বলি। জন্ম থেকে আমি এমন একটা ধর্ম খুঁজেছি, যে ধর্ম ভয় দেখাবে না, লোভ দেখাবে না, শুধু শান্তির কথা বলবে। সেই

আমার অন্তর্যামী মা

প্রদীপ মল্লিক মা শব্দটাই কেমন আবেগ,ভালোবাসা, স্নেহ দিয়ে পরিপূর্ণ। যে কোন দুঃখে,কষ্টে,আঘাতে কিংবা আনন্দেই হোক আমাদের মুখে যে নামটি সবার আগে ফুটে ওঠে সেই নামটি হচ্ছে মা। সকল আঘাত,কষ্ট,যন্ত্রণা সহ্য করে নিজের আনন্দ,সুখ,শান্তি বিসর্জন দিয়ে তিনি সবসময় চেষ্টায় থাকেন তার সন্তানকে ভালো রাখার।সেই সন্তানকে কিভাবে ভালো রাখা যায়,সুখে রাখা যায়,কিভাবে সমাজে

একটু শেয়ারিং আর কেয়ারিং এ সম্পর্ক হয় মধুর

মতিউর রহমান রিয়াদ সকালে ঘুম থেকে ওঠে ঘর ঝাড়ু দেয়া থেকে শুরু করে নাস্তা বানানো, বাচ্চা স্কুলে নিয়ে যাওয়া, ঘর গুছানো, দুপুরে সন্তান কে নিয়ে আসা, আবার দুপুরের খাবার তৈরি করা, প্রয়োজনে চাকরি করা, এই সবগুলো কাজ একজন স্ত্রী কেন করে থাকে জানেন? শুধুই তার স্বামীর মুখের একচিলতে হাসিটা দেখার জন্য।

মেট্রোয় আলিঙ্গন করায় টেনে নামিয়ে যুগলকে গণপ্রহার

আনন্দবাজার থেকে প্রতিবেদন টা হুবহু তুলে ধরা হলো উইমেন ওযার্ডস এর পাঠকদের জন্য- উজ্জ্বল চক্রবর্তী চাঁদনি চক থেকে মেট্রোয় উঠেছিলাম। রোজ যেমন উঠি। সোমবার রাত তখন প্রায় পৌনে ১০টা। সঙ্গে আমার এক সহকর্মী। স্টেশন ছাড়তেই একটা উত্তেজিত কথোপকথন কানে এল। আমরা যেখানে দাঁড়িয়েছিলাম, তার থেকে দুটো গেট দূরেই হইচইটা হচ্ছিল। প্রথমে বুঝতে পারিনি, কোনও