You are here
নীড়পাতা > সাম্প্রতিক > অবিশ্বাস্য তাদের বয়স!

অবিশ্বাস্য তাদের বয়স!

তাইওয়ানের এই পরিবারটি সম্ভবত পৃথিবীর একমাত্র পরিবার যারা নিজেদের তারুণ্য ধরে রেখেছেন অবিশ্বাস্যভাবে।

ওপরের ছবিটা দেখুন। খুব ভালো মতো দেখলেও মনে হবে, টিনএজ বয়সী বা টিনএজ পেরিয়েছে এমন তিন বোন বলেই মনে হবে। কিন্তু তা মোটেও না। বিশ্বাস হবে না আপনার। কিন্তু এটাই সত্য যে, ছবির মাঝখানের নারী একজন মা এবং তার বয়স ৬৩ বছর। তার দুই পাশে দুই মেয়ে। ডানের জন লুরে সু, তার বয়স ৪১। আর বামের জন শ্যারন, বয়স ৩৬। বিশ্বাস করতে পারেন? বয়স বেড়েছে ঠিকই। কিন্তু তারুণ্য ধরে রাখতে এদের চেয়ে এগিয়ে আছেন এমন কাউকে দেখেছেন কোন দিন? দেখা তো দূরের কথা, আপনি হয়তো ভাবতেও পারেন না।  

লুরে সু একজন ফ্যাশন ব্লগার। তার বদৌলতে অনেকেই তাকে চেনেন। তার বয়স জানার পর অনেকেই ভিড়মি খেয়েছেন। কিন্তু তার মা এবং অন্য বোনও যে বিস্ময়ের আধার, তা আগে কেউ জানতেন না। শ্যারন ছাড়াও লুরের আরেক বোন আছেন। তার নাম ফেফায়। তার বয়স ৪০। তিনিও তারুণ্য ধরে রেখেছেন অবিশ্বাস্যভাবে।  

এর পেছনের গূঢ় রহস্যটা কী? তাইওয়ানের ফ্রাইডে ম্যাগাজিনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তারা জানান, প্রচুর পানি আর সবজি খেতেন তারা। সেই সঙ্গে ত্বককে ময়েশ্চারাইজারপূর্ণ রাখতে হবে। আপনার ত্বকে যথেষ্ট পানি থাকলে তার বুড়িয়ে যাওয়া নিয়ে আর চিন্তা করতে হবে না। ফেফায় তো প্রতিদিন সকালে বড় একটি গ্লাসে হালকা গরম পানি খেতেন। এ কাজ তিনি এক যুগেরও বেশি সময় ধরে করছেন।  

তারা যাই করেন না কেন, তবুও বিশ্বাস করতে কষ্ট হয় সবার। বয়স এতটা সামলে রাখা সম্ভব?

সূত্র : ইন্টারনেট, কালের কন্ঠ 

 

Similar Articles

Leave a Reply